Home » রাজনীতি (page 29)

রাজনীতি

বিশ্বজুড়ে উদ্বাস্তু’র ঢল :: চাপিয়ে দেয়া যুদ্ধের শিকার শিশু আয়লান

বাংলাদেশও এখন উদ্বাস্তুদের দেশে পরিণত হয়েছে

মোহাম্মদ হাসান শরীফ

Last 1৩ বছরের ছোট্ট আয়লান কুর্দি। ওই বয়সে যখন তার মাবাবার আদরে সবচেয়ে নিরাপদ ঠিকানায় নিশ্চিন্তে বাস করার কথা, তখন সে ডিঙ্গিতে করে উত্তাল সাগরে ভেসেছে। তারপরবাবার হাত ফসকে টুপ করে অথৈ পানিতে ভেসে গেছে। সে একা নয়, তার বড় ভাইবয়স ৫, মাও ভেসে গেছে। তার মৃত্যু একটি বড় প্রশ্নের সৃষ্টি করেছে। এই বয়সেই সে বিশ্বকে নাড়িয়ে দিয়েছে, জানান দিয়ে গেছে উদ্বাস্তু হওয়া, শরনার্থী হওয়ার ক্ষ্ট ও যন্ত্রনার কথা। তুর্কি উপকূলে ভেসে আসা তার নিথর দেহটি পাশ্চাত্যের সভ্যতাগর্বী মানুষদের চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে, যুদ্ধের দাবানল, আর নির্যাতনের স্ট্রিম রোলারের কারণে নিরীহ নাগরিকেরা হয়ে পড়েছে উদ্বাস্তু। সুখের সোনার হরিণ ধরার জন্য নয়, নিছক প্রাণ বাঁচানোর আকুতিতে এই ঢল কখনো আছড়ে পড়ছে গ্রিস, হাঙ্গেরি, তুরস্ক, ইতালির উপকূলে, কখনো মালয়েশিয়া, থাইল্যান্ড আর ইন্দোনেশিয়ার ভয়াল জঙ্গলে। বিস্তারিত »

বেচারি আয়লান কুর্দি! বরং ও মরে বেঁচেছে

শীর্ষ বন্দ্যোপাধ্যায়

Last 2ওই যে ছেলেটা সমুদ্রের জলের সঙ্গে ভেসে এসে বালিতে মুখ গুঁজড়ে পড়ে ছিল, ওকে মারতে আমাদের গত চার বছরে কম করে হলেও চারশ কোটি ডলার খরচা করতে হয়েছে! কাজেই এই যে সারা পৃথিবীর বিবেক জাগ্রত হল হঠাৎ, সেটা কিন্তু আমাদের জন্যে এবং তার খরচ নেহাত কম নয়। আমরা এ ব্যাপারে কখনও কোনও কার্পণ্য করি না বলেই বিশ্বের লোক বছরভর নিখরচায় এমন আমোদ পায়। বছরে গড়ে ১০০ কোটি ডলার করদাতাদের দেওয়া ভাড়ার থেকে আমাদের নিঃশব্দে সরিয়ে ফেলতে হয়েছে সিরিয়ার গৃহযুদ্ধটাকে চাঙ্গা রাখার জন্যে। তার ওপর আইএস জঙ্গিদের ওপর বিমান হামলা করতে দিনে এক কোটি ডলার খরচ হয়। চার বছরে ঠিক ৬৬৫০ বার এরকম মারমার কাটকাট বিমান হামলা চালিয়েছি, যার ৩৭% সিরিয়ায় হয়েছে। বিস্তারিত »

চীন :: পরাশক্তির বিবর্তন (পর্ব – ২৬)

ভারতের সাথে যুদ্ধ এবং সোভিয়েত পার্টির সাথে বিরোধের বিস্তার

আনু মুহাম্মদ

Last 3বিরাট উল্লম্ফনের ওঠানামা, সাফল্য ব্যর্থতা নিয়ে নিজেদের মধ্যে বিতর্ককালেই সোভিয়েত পার্টির সাথে বিরোধ ও বিতর্ক শুরু হয়। ঠিক একই সময়ে ভারতের সাথে সীমান্ত বিরোধ থেকে যুদ্ধ শুরু হয় ১৯৬২ সালে। ১৯৫০ সালে চীনের গণমুক্তি বাহিনী তিব্বত দখলে নেয়। ১৯৫৬৫৭ সালে ঐ অঞ্চলে একটি সড়ক নির্মাণ করে আকসাই চিন নামক স্থানে সীমান্ত চৌকি স্থাপন করে। এই সড়ক ও চৌকি নিয়েই বিরোধের সূত্রপাত।

এর মধ্যে ১৯৫৪ সালে চীন ও ভারত শান্তিপূর্ণ সহাবস্থানের জন্য পাঁচটি নীতিতে একমত হয়, যা পরে ‘পঞ্চশীলা নীতি’ নামে পরিচিতি পায়। এই পাঁচটি নীতি হলো: ‘() পারস্পরিক ভৌগোলিক অখণ্ডতা ও সার্বভৌমত্ব বিষয়ে পরস্পরের শ্রদ্ধা; () পারস্পরিক অনাক্রমণ নীতি; () পরস্পরের আভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপ না করা; বিস্তারিত »

বিশ্বশান্তির জন্য সবচেয়ে মারাত্মক হুমকি কে? (প্রথম পর্ব)

নোয়াম চমস্কি

অনুবাদ : আসিফ হাসান

Last 4ভিয়েনায় ইরান এবং পি৫+১ দেশগুলোর (জাতিসঙ্ঘ নিরাপত্তা পরিষদের ভেটো শক্তিধারী পাঁচটি দেশ ও জার্মানি) মধ্যকার পরমাণু চুক্তিটি বিশ্বজুড়ে বিপুল স্বস্তি ও আশাবাদ জাগিয়েছে। ‘এই ব্যাপকভিত্তিক কর্মপরিকল্পনা ইরানের পরমাণু অস্ত্র নির্মাণের সামগ্রী সংগ্রহের সম্ভব সব রাস্তা এক প্রজন্মেরও বেশি সময় বন্ধ করার একটি শক্তিশালী ও কার্যকর ফরমুলা এবং ইরানের গোপনে পরমাণু অস্ত্র লাভের সম্ভব সব উদ্যোগ সাথে সাথে শনাক্তকরণ ও নিবৃত্ত করার প্রমাণিতব্যবস্থা, যা অনির্দিষ্ট কাল পর্যন্ত স্থায়ী হবে’ বলে ইউএস আর্মস কন্ট্রোল এসোসিয়েশন এই চুক্তি সম্পর্কে যে মূল্যায়ন দিয়েছে, বিশ্বের বেশির ভাগই দৃশ্যত এর সাথে একমত। বিস্তারিত »

তেলের অর্থ এবং আন্তর্জাতিক অস্ত্র ব্যবসার নেপথ্যে (ষষ্ঠদশ পর্ব)

টনি ব্লেয়ার বললেন, ব্যাপারটি জাতীয় নিরাপত্তার প্রশ্নেও অচলাবস্থার

অস্ত্র ব্যবসার সাথে তেল সম্পদের অর্থের একটি গভীর সখ্যতা রয়েছে। একটি অপরটিকে টিকিয়ে রাখে। আর পরস্পরের ঘনিষ্ঠ দুই ব্যবসার কুশীলবরা। এই ব্যবসার নেপথ্যে রয়েছে ঘুষ, অর্থ কেলেঙ্কারিসহ নানা ভয়ঙ্কর সব ঘটনাবলী। এরই একটি খণ্ডচিত্র প্রকাশ করা হচ্ছে ধারাবাহিকভাবে। প্রভাবশালী দ্য গার্ডিয়ানএর প্রখ্যাত দুই সাংবাদিক ডেভিড লে এবং রাব ইভানসএর প্রতিবেদন প্রকাশের পরে এ নিয়ে বিস্তর আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছিল। এ সংখ্যায় ওই প্রতিবেদনের বাংলা অনুবাদের (ষষ্ঠদশ পর্ব) প্রকাশিত হলো। অনুবাদ : জগলুল ফারুক বিস্তারিত »

সামনে কোরবানী :: ভারতীয় ‘গরু’ রাজনীতি

এস এন এম আবদি

অনুবাদ : মোহাম্মদ হাসান শরীফ

Dis 5প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০০৯ সালে ক্ষমতায় আসার পর থেকে বাংলাদেশ নামের ছোট্ট প্রতিবেশী দেশটি ভারতের একেবারে প্রতিটি আবদার বিনা বাক্য ব্যয়ে মিটিয়ে চলছিল। কিন্তু স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে রাজনাথ সিংয়ের সবচেয়ে বড় ‘অর্জনের’ কারণে সেই দেশটির সাথে সম্পর্কে মারাত্মক টানাপোড়েনের সৃষ্টি হয়েছে। গরুর গোশতের দাম আকাশচুম্বি হওয়া এবং ২৫ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠেয় ঈদউল আযহায় কোরবানি করার মতো পশুর স্বল্পতার কারণে বাংলাদেশীরা আজ ক্রুদ্ধ। উভয় সমস্যা সৃষ্টি হয়েছে রাজনাথের হিন্দুত্ববাদী বা হিন্দুৎভা নীতির কারণে, যা একই সাথে অর্থনৈতিক গতিপ্রবাহের সাধারণ সূত্রের পরিপন্থী এবং ভারতের জাতীয় স্বার্থবিরোধী। বিস্তারিত »

একদিকে খাদ্য নিরাপত্তাহীনতা অন্যদিকে রফতানির স্বপ্ন

আমাদের বুধবার প্রতিবেদন

Dis 4বাংলাদেশে এখন হয়তো না খেয়ে মারা যাবে না মানুষ। কিন্তু আধাপেটা খেয়ে বেঁচে থাকতে হচ্ছে অধিকাংশ মানুষকে। স্থানীয় পর্যায়ে করা একাধিক গবেষণায় বিষয়টি উঠে এসেছে। সম্প্রতি যুক্তরাজ্যভিত্তিক দি ইকনোমিষ্ট ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের গবেষণা প্রতিবেদনে বাংলাদেশের খাদ্য নিরাপত্তার সঙ্গীন অবস্থা তুলে ধরা হয়েছে। তারা বলছে, বিশ্বে খাদ্যনিরাপত্তায় নিচের সারিতে থাকা দেশগুলোর একটি বাংলাদেশ। সম্প্রতি ইআইইউ প্রকাশিত ‘গ্লোবাল ফুড সিকিউরিটি ইনডেক্স ২০১৫’ শীর্ষক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বৈশ্বিক খাদ্যনিরাপত্তা সূচকে ১০৯টি দেশের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান ৮৯তম। শুধু তাই নয়, এক্ষেত্রে দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে সর্বনিম্নে এবং এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের ২২টি দেশের মধ্যে ২১তম অবস্থানে রয়েছে বাংলাদেশ। বিস্তারিত »